হোমPlot1পরীক্ষার জন্য এগিয়ে এল বইমেলা, বাড়ছে প্রকাশকদের ভিড়, জায়গা নিয়ে চিন্তিত গিল্ড

পরীক্ষার জন্য এগিয়ে এল বইমেলা, বাড়ছে প্রকাশকদের ভিড়, জায়গা নিয়ে চিন্তিত গিল্ড

পরীক্ষার জন্য এগিয়ে এল বইমেলা, বাড়ছে প্রকাশকদের ভিড়, জায়গা নিয়ে চিন্তিত গিল্ড

পরীক্ষার জন্য এবারের আন্তর্জাতিক কলকাতা বইমেলার দিনক্ষণ এগিয়ে আনা হল। সল্টলেকের বইমেলা প্রাঙ্গনে আগামী বছরের ১৮ জানুয়ারি থেকে শুরু হতে চলেছে ৪৭তম আন্তর্জাতিক কলকাতা বইমেলা। মেলা চলবে ৩১ জানুয়ারি পর্যন্ত। মেলার উদ্বোধন করবেন মুখ্যমন্ত্রী  মমতা ব্যানার্জি।

মেলার আয়োজক পাবলিশার্স অ্যান্ড বুক সেলার্স গিল্ডের সভাপতি ত্রিদিব কুমার চট্টোপাধ্যায় ও সাধারণ সম্পাদক সুধাংশু শেখর দে মঙ্গলবার কলকাতায় এক সাংবাদিক বৈঠকে বলেন, “জানুয়ারির শেষ থেকে বাংলা ও ইংরেজি মাধ্যম স্কুলের বোর্ড পরীক্ষা শুরু হয়ে যাচ্ছে। মেলার এই সময় পরিবর্তন বইপ্রেমীদের  কাছে সুখবর বলেই মনে করছি, তাঁরা ২টি শনিবার ও ২টি রবিবার ছাড়াও ২৩ ও ২৬ জানুয়ারি ছুটিও এবার পাচ্ছেন।  দিন।”

শারদ উৎসবের পরে এই রাজ্যের সবচেয়ে বড় উৎসব, আন্তর্জাতিক কলকাতা বইমেলা। মুখ্যমন্ত্রীর প্রতি কৃতজ্ঞতা জানিয়ে গিল্ডের দুই কর্তা বলেন, “মুখ্যমন্ত্রীর আনুকূল্যে গিল্ডের প্রতিনিধিরা তাঁর সঙ্গে বিজনেস ডেলিগেশনে স্পেন সফরে গেছিলেন, প্রকাশকরা বেঙ্গল গ্লোবাল বিজনেস সামিটে ক্রিয়েটিভ ইকনমি সেশনে বক্তব্য রাখার সুযোগ পেয়েছিলেন।”

ত্রিদিববাবু ও সুধাংশুবাবু জানান, পৃথিবীর বৃহত্তম পাঠকধন্য এই বই উৎসবে ২০২৩ সালে ২৬ লক্ষ বইপ্রেমী মানুষ এসেছিলেন। ২৫ কোটি টাকার বই বিক্রি হয়েছে। তবে মেলা প্রাঙ্গনের তুলনায় বইমেলায় অংশগ্রহণের জন্য নতুন প্রকাশকদের আবেদন দিন দিন বেড়ে চলেছে। এই অবস্থায় বিপুল সংখ্যক প্রকাশককে কীভাবে জায়গা দেওয়া সম্ভব হবে, তা নিয়ে কিছুটা চিন্তিত গিল্ডের কর্তারা। তবে কী করে আরও নতুনদের মেলায় জায়গা দেওয়া যায়, তা পরিকল্পনা চলছে বলে জানান তাঁরা।

৪৭তম আন্তর্জাতিক কলকাতা বইমেলার ফোকাল থিম কান্ট্রি হল যুক্তরাজ্য বা গ্রেট ব্রিটেন। ২০২৩-২৪ ভারতে ব্রিটিশ কাউন্সিলেরও উপস্থিতির ৭৫ বছর।

সাংবাদিক বৈঠকে উপস্থিত ছিলেন পূর্ব ও উত্তর-পূর্ব ভারতের ব্রিটিশ উপরাষ্ট্রদূত অ্যান্ড্রু ফ্লেমিং এবং ব্রিটিশ কাউন্সিলের পূর্ব ও উত্তর-পূর্ব ভারতের ডিরেক্টর ড. দেবাঞ্জন চক্রবর্তী।

দেবাঞ্জনবাবু বলেন, “বইমেলা সত্যিই এক বড় উৎসব। গত বছর আমরা ভারতের স্বাধীনতার ৭৫ বর্ষপূর্তি উদযাপন করেছিলাম। এবার আমরা ব্রিটিশ কাউন্সিলেরও ৭৫ বছর উদযাপন করব। এই উপলক্ষে বেশ কয়েকটি অনুষ্ঠানও এবার রাখা হবে।”

এবারের মেলায় অংশ নিচ্ছে আমেরিকা, ফ্রান্স, ইতালি, স্পেন, থাইল্যান্ড, অস্ট্রেলিয়া, বাংলাদেশ, পেরু, আর্জেন্টিনা, কলম্বিয়া প্রভৃতি দেশ।  ১২ বছর পর আসছে জার্মানিও। এছাড়া থাকছে  দিল্লি, উত্তরপ্রদেশ, মধ্যপ্রদেশ, হরিয়ানা, পাঞ্জাব, তামিলনাডু, গুজরাট, মহারাষ্ট্র, বিহার, অসম, ঝাড়খন্ড, তেলেঙ্গানা, কেরালা, ওড়িশা সহ দেশের বিভিন্ন রাজ্যের প্রকাশনা সংস্থা।  থাকছে লিটল ম্যাগাজিন প্যাভিলিয়ন, চিলড্রেনস প্যাভিলিয়ন এবং অন্যান্য আকর্ষণও।

আন্তর্জাতিক কলকাতা বইমেলার অন্যতম আকর্ষণ, তিনদিনের কলকাতা সাহিত্য উৎসব ফেস্টিভ্যাল (KLF) অনুষ্ঠিত হবে ২৬ থেকে ২৮ জানুয়ারি।

spot_img
spot_img

সবাই যা পড়ছেন

spot_img