হোমআন্তর্জাতিকসমাজসেবী কুন্তলের অনন্য উদ্যোগ, ইউক্রেন থেকে ফিরলেন পড়ুয়া সহ ১৫ ভারতীয়

সমাজসেবী কুন্তলের অনন্য উদ্যোগ, ইউক্রেন থেকে ফিরলেন পড়ুয়া সহ ১৫ ভারতীয়

সমাজসেবী কুন্তলের অনন্য উদ্যোগ, ইউক্রেন থেকে ফিরলেন পড়ুয়া সহ ১৫ ভারতীয়

যুদ্ধবিধ্বস্ত ইউক্রেনে আটকে পড়া বহু ভারতীয় ছাত্রছাত্রী ইতিমধ্যে দেশে ফিরে এসেছেন। সরকারি তৎপরতার পাশাপাশি ব্যক্তিগত উদ্যোগে ১০ জন পড়ুয়া এবং ইউক্রেনে কর্মরত ৫ ভারতীয়কে পরিবারের কাছে ফিরিয়ে দিয়ে দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছেন হুগলির সমাজসেবী কুন্তল ঘোষ।

ইউক্রেনের কিয়েভের একটি কলেজের ডাক্তারি পড়ুয়া সোমালি সাউ। গুলি, বোমা এবং ক্ষেপণাস্ত্র হামলার মধ্যে অন্যান্য ভারতীয় পড়ুয়াদের সঙ্গে কিয়েভের একটি অন্ধকার ঘরে আতঙ্ক আর উৎকণ্ঠা নিয়ে এক সপ্তাহ কাটিয়েছেন। জীবিত অবস্থায় প্রিয়জনদের কাছে ফিরতে পারবেন, এমন আশা প্রায় ছেড়েই দিয়েছিলেন। অবশেষে ইউক্রেনের অফিশিয়ালরা ২ দিন আগে সোমালিকে ডেকে একটি বিশেষ বিমানে নিরাপদে তাঁকে ভারতে ফেরত পাঠানোর ব্যবস্থা করেন।

সোমালি ছাড়াও অন্য যাঁরা কুন্তলের চেষ্টায় দেশে ফিরে এসেছেন, তাঁদের মধ্যে রয়েছেন, সুনীল ত্রিবেদী, প্রদীপ নায়েক, চিত্র স্বামী, প্রবীণ দেশমুখ, এস কে আলি, ফারুক শেখ, জন মালিক, সঞ্জু রাও, স্মৃতি দেশাই, অঞ্জু জয়সওয়াল, ওয়াসিম আক্রম, রোহিত দত্ত এবং ইয়াসির রহমান। এঁরা ইতিমধ্যে, চেন্নাই, কেরালা, বেঙ্গালুরু সহ দেশের বিভিন্ন অংশে তাঁদের পরিবারের কাছে পৌঁছেও গিয়েছেন।

সবুজ সঙ্গী নামে একটি স্বেচ্ছাসেবী সংস্থার প্রধান কুন্তল বলেন, “এই ১০ জন পড়ুয়া এবং ইউক্রেনে কর্মরত ৫ জন ভারতীয় যুদ্ধের জন্য সেখানে আটকে পড়েছিলেন এবং অর্থাভাবে তাঁরা দেশে ফিরতে পারছিলেন না। এঁদের উদ্ধার করে দেশে ফেরানোর জন্য আমরা মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়, রাজ্যের আমলা এবং মন্ত্রীদের সঙ্গে যোগাযোগ করি। তাঁরাইকেন্দ্রের অপারেশন গঙ্গা মিশনের মাধ্যমে এঁদের ফেরানোর ব্যবস্থা করেন।”

কুন্তল বলেন, “আমরা রাজ্য ও কেন্দ্রীয় সরকারের সঙ্গে নিয়মিত যোগাযোগ রেখেছিলাম। কেন্দ্রকে এই ১৫ জনের নাম এবং তাঁরা কিয়েভের কোথায় তাঁরা আটকে ছিলেন, সে সম্পর্কে বিস্তারিত তথ্য দিই। সবাইকে ইউক্রেন সীমান্তে আসতে বলা হয় এবং সেখান থেকে বিশেষ বিমানে তাঁদের ফিরিয়ে আনা হয়।”

তৃণমূল যুব নেতা কুন্তলের কথায়, “দেশের মানুষকে দেশে ফেরাতে পেরে ভাল লাগছে৷ এত বড় একটা দায়িত্ব পালনে আমাকে অনুপ্রেরণা জুগিয়েছেন বাংলার মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়, অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায় এবং তৃণমূল যুবনেত্রী সায়নী ঘোষ।”

spot_img
spot_img

সবাই যা পড়ছেন

spot_img