হোম অন্যান্য সাহিত্য-সংস্কৃতি Ghost : গেছো থেকে চোরাচুন্নি, নানা রূপে ভূতকাহিনী

Ghost : গেছো থেকে চোরাচুন্নি, নানা রূপে ভূতকাহিনী

দেবস্মিতা নাগ
এসে পড়েছে আষাঢ় মাস, সাথে করে নিয়ে এসেছে খিচুড়ি, বেগুনভাজা, ইলিশ মাছ। কিন্তু বর্ষাকে পুরোপুরি উপভোগ করতে গেলে, বাঙালির আরেকটা জিনিস লাগে। ওই জিনিসটি ছাড়া উদরপূর্তি অসম্পূর্ণ। সেটি হল, একটা আষাঢ়ে গপ্পের ভূতুড়ে বই। মুখশুদ্ধি হিসেবে ছুটির দিনে ওটি কিন্তু বাঙালির চাই-ই চাই। শিশু কিশোররা তো বটেই, বড়রাও অনেক সময় বইয়ের তাক থেকে ঝেড়ে ঝুড়ে নিয়ে বালিশে হেলান দিয়ে বসে পড়েন। এক লহমায় পৌঁছে যান ফেলে আসা কৈশোরে।

কাদের হাত ধরে? সেই ‘তেঁনাদেঁর’ হাত ধরে। বাংলা গল্প, আষাঢ় মাস, ঝমঝমে বৃষ্টি দিয়ে শুরু হলেই বুঝতে হবে, এইবারে ‘তেঁনারা ‘ অর্থাৎ ভূতেরা হাজির হবেন, আর খোলা গলায় কিছু বলবেন বা লম্বা ঠ্যাং ঝুলিয়ে গাছে বসে পা দোলাবেন। বিভূতিভূষণ, রবীন্দ্রনাথ, শরৎচন্দ্র থেকে শুরু করে শীর্ষেন্দু, সঞ্জীব সবাই কিন্তু তাঁদের গল্পে ভূতেদের জায়গা দিয়েছেন।

বাংলা সাহিত্যে রকমারি ভূতের দেখা মেলে। এইসব ভূতের পরিচিতির সাথে বঙ্গ সমাজের নানান উত্থান পতনের কাহিনী জড়িয়ে আছে। আজ সেই সব ভূতেরা কী করে বঙ্গসাহিত্যে জন্মালো, সেই কথাই হবে।

প্রথমেই বলি, মেছো ভূতের কথা। বাঙালির বড় পছন্দের ভূত মেছো। হবেই তো। এবং সঙ্গত কারণেই। মাছ খাওয়ার আকাঙ্ক্ষা মনে নিয়ে কত বাঙালির যে পঞ্চত্ব প্রাপ্তি হয়, তা কে বলতে পারে! সেই সব ভূতেরাই তো মানুষের কাছ থেকে ভয় দেখিয়ে মাছ আদায় করে খায়।

এর পর আসে শাকচুন্নি বা শঙ্খচূর্ণিকা। এরা বিধবা ভূত। এরা জীবিতাবস্থায় অসম্ভব অবহেলা অত্যাচার সহ্য করে মারা যায়। ফলে মৃত্যুর সময় এদের মনে অনেক অতৃপ্ত বাসনা থেকে যায়। সেই সব বাসনা চরিতার্থ করতেই এরা লোকের ঘাড় মটকায়। এদের পরনে থাকে সাদা শাড়ি। এরা গ্রামের উপান্তে বনে বাদাড়ে বাস করে।

সবচেয়ে শক্তিশালী ভূত হলো বেম্মদত্যি বা ব্রহ্মদৈত্য। এরা হলো ব্রাহ্মণ ভূত। তাই প্রাচীন বঙ্গসমাজ এদেরকেই সবচেয়ে শক্তিশালী ধরে নিয়েছে। এরা সাধারণত থাকে প্রাচীন বট গাছে।এদের হাতে পড়লে আর নিস্তার নেই।

আর দেখা যায় মামদোকে। মুহম্মদ কথাটা থেকে মামদো নামটা এসেছে। অর্থাৎ, মুসলমান মরলে মামদো ভূত জন্মায়।

কন্দকাটা বা স্কন্ধকাটা ভূতের মাথা থাকে না। রেলে কাটা পড়লে বা গলা কাটা গিয়ে মারা গেলে এ হেন ভূত হয়। এরা সারাক্ষণ জ্যান্ত মানুষের মাথা খুঁজে বেড়ায়।

গেছো ভূতেরা খুবই বিপজ্জনক হয়। এরা সন্ধেবেলা গাছতলা দিয়ে কোনো মানুষ গেলে ঝাঁপিয়ে পড়ে ঘাড় মটকায়।

বেঘো ভূত দেখা যায় সুন্দরবন এলাকায়। সেখানকার মানুষরা বাঘের পেটে গেলে বেঘো ভূত হয়ে জন্মান। এরা গ্রামের লোককে ভয় দেখাতে বাঘের গলা নকল করে ডেকে ওঠে।

এরকমই চেনা মানুষের গলা নকল করে বাড়ি থেকে ডেকে নিয়ে গিয়ে মেরে ফেলা নিশি ভূতের একটা খারাপ স্বভাব। অবশ্য তার ডাকে সাড়া না দিলে আর ভয় নেই।

যে কোনও মহিলা অতৃপ্ত ইচ্ছা নিয়ে মারা গেলেই পেত্নী হতে পারেন। সেক্ষেত্রে পা যদি পিছন দিকে ঘোরানো হয়, বুঝতে হবে সেটা একটা পেত্নী। এরা সাধারণত খুব বদমেজাজি হয়। আর যে কোনও চেহারা ধারণ করতে পারে।

চোর মরে ভূত হলে চোরাচুন্নি হয়। এ মরেও চুরি করতে গৃহস্থের ঘরে ঢোকে। স্বভাবটা বড্ড খারাপ।গঙ্গাজল ছিটিয়ে একে বাড়ি ছাড়া করতে হয়।

প্যাঁচা পেঁচির হলো সবচেয়ে সাংঘাতিক ভূত। খুব কমই একে দেখা যায়। গভীর জঙ্গলে থাকে। একলা পথিক দেখলে তাদের মেরে মাংস খায়।

সব শেষে বলি সাহেব ভূতের কথা। এরা সেই ইংরেজ আমলে বিপ্লবীদের হাতে নিহত নীলকুঠির সাহেব।খুবই নিরাপদ ভূত। ওই কুঠিগুলোর বাইরে পা দেন না। সাহেবি কেতায় আজও সে সব নীলকুঠিতে বাস করেন। ওনাদের জন্য রাতের বেলা নীলকুঠিগুলো আবার জীবন্ত হয়ে ওঠে।

যুগে যুগে ‘তেঁনারা’ বঙ্গসাহিত্য ও বাঙালির বর্ষাকালকে জমিয়ে রেখেছেন। ‘তেঁনাদেঁর’ দীর্ঘায়ু কামনা করি।

আমাদের পাশে থাকুন

আমজনতাই আমাদের চালিকা শক্তি। আপনার সামান্য অনুদান আমাদের চলার পথে সাহস জোগাতে পারে।

ইচ্ছুকরা এই অ্যাকাউন্টে অনুদান পাঠাতে পারেন :
Bank Name : Bank of Baroda
A/C Name : Kolkata News Today
A/C No. 30850200000526
IFSC Code : BARB0MADHYA

GSTIN : 19AJEPM5512C1ZI
Email : kolkatanewstoday@gmail.com

সবাই যা পড়ছেন

Ghatal : জলে ভাসছে ঘাটালের বিস্তীর্ণ অংশ, দুর্গত এলাকায় সুব্রত মুখার্জি

বিশেষ প্রতিনিধি : ২ দিনের টানা বর্ষণে প্লাবিত হয়ে পড়েছে ঘাটাল (Ghatal), দাসপুরের বিস্তীর্ণ এলাকা। এই নজিরবিহীন বিপর্যয়ের জন্য কেন্দ্রকে দায়ী করেছেন...

Babul BJP : ফের ডিগবাজি বাবুলের, বললেন, “রাজনীতি ছাড়ছি, তবে সাংসদ থাকছি”

ফের ডিগবাজি বিজেপি (BJP) সাংসদ বাবুল সুপ্রিয়র (Babul Supriya)। রাজনীতি এবং সাংসদ পদ ছাড়ার কথা ঘোষণা করেছিলেন বাবুল। সোমবার বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতি...

East Bengal : আইএসএলে খেলবে ইস্টবেঙ্গল, সমর্থকদের স্বস্তি দিয়ে ঘোষণা মমতার

লক্ষ লক্ষ ইস্টবেঙ্গল (East Bebgal) সমর্থকের মুখে হাসি ফুটিয়ে স্বস্তির বার্তা দিলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় (Mamata Banerjee)। যাবতীয় বিতর্ক দূরে সরিয়ে মুখ্যমন্ত্রী...

Kolkata : দাঁড়িয়ে বর্ষার জল, ম্যানহোলের ভিতরে মিলল বালির বস্তা, লেপ, তোষক

বৃষ্টির পর ২ দিন কেটে গেলেও কলকাতার বিভিন্ন এলাকা এখনও জলে ভাসছে। এর মধ্যেই রবিবারম্যানহোলে মিলল বালির বস্তা, ইট, লেপ তোষক। ড্রেন...

Olympic Sindhu : পরপর দুই অলিম্পিকে পদক, অনন্য নজির সিন্ধুর

পরপর দুটি অলিম্পিকে (Olympic) পদক জয়ের নজির গড়লেন পি ভি সিন্ধু (P V Sindhu)। গত অলিম্পিকে জিতেছিলেন রুপো। এবার টোকিও অলিম্পিকে জিতলেন...